শিক্ষা

শিক্ষা

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ৫০ আসন বৃদ্ধি

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (ববি) ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে ৫০টি আসন বৃদ্ধি পেয়েছে। এতে করে বিশ্ববিদ্যালয়টির মোট আসনসংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৫৭০টি। সম্প্রতি বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের ৪২তম সভা এবং সিন্ডিকেটের ৮২তম সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয়ের এক বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানানো হয়েছে। চলতি শিক্ষাবর্ষে বর্ধিত আসনে শিক্ষার্থী ভর্তি নেবে বিশ্ববিদ্যালয়টি।

২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষে বিজ্ঞান শাখার ‘এ’ ইউনিটে ৬০০টি, ‘বি’ ইউনিট তথা মানবিক শাখায় ৬২০টি এবং ‘সি’ ইউনিটের শিক্ষার্থীদের জন্য ৩০০টি আসন ছিল।

বর্ধিত আসনের হিসেবে ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে দর্শন বিভাগে ৩০টি থেকে ৫০টি, ইতিহাস বিভাগ ৪০টি থেকে ৫০টি, প্রাণ রসায়ন ও জীবপ্রযুক্তি বিভাগে ৩০টি থেকে ৪০টি এবং পরিসংখ্যান বিভাগে ৩০টি থেকে ৪০টি আসনে শিক্ষার্থী ভর্তি নেবে ববি।

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ধারাবাহিকভাবে আসন সংখ্যা বাড়ছে। ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে মোট আসন ছিল ১ হাজার ৪৫০টি, ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষে ৫০টি বৃদ্ধি করে করা হয় ১ হাজার ৪৯০টি, ২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষে করা হয় ১ হাজার ৫২০টি। বর্তমানে ৫০টি আসন বৃদ্ধির ফলে আসন দাড়িয়েছে ১ হাজার ৫৭০টি।

২০১১-১২ শিক্ষাবর্ষে ছয়টি বিষয়ে স্নাতক পর্যায়ের শিক্ষা কার্যক্রম দিয়ে যাত্রা শুরু করে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়। বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতিষ্ঠাকালীন ২০১১-১২ শিক্ষাবর্ষে আসনসংখ্যা ছিল মাত্র ৬২০টি। বর্তমানে ৬টি অনুষদের ২৫টি বিভাগে আসন রয়েছে ১ হাজার ৫২০টি।

বিষয়:
পরবর্তী খবর

চাঁপাইনবাবগঞ্জে ২ দিনের বিজ্ঞান মেলা

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নামোশংকরবাটী উচ্চ বিদ্যালয়ে শুরু হয়েছে দুইদিনের বিজ্ঞান মেলা। মঙ্গলবার সকালে মেলার উদ্বোধন করেন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুর রশিদ।

নামোশংকরবাটী উচ্চ বিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি দররুল হোদার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন– দেবীনগর দ্বি-মুখী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও জেলা শিক্ষক-কর্মচারী কল্যাণ সমিতির সভাপতি আব্দুল আজিজ, চরমোহনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রফিকুল ইসলাম, নামোশংকরবাটী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আসলাম কবীরসহ অনান্যরা।

নামোশংকরবাটী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আসলাম কবীর জানান, শিক্ষার্থীদের মধ্যে উদ্ভাবনী শক্তি বাড়াতেই এ বিজ্ঞান মেলা আয়োজন করা হয়েছে। এতে শিক্ষার্থীদের ৩৬টি গ্রুপ তাদের উদ্ভাবনী প্রকল্প উপস্থাপন করে।

পরবর্তী খবর

কোটা বাতিলের দাবিতে ববির রাস্তায় শিক্ষার্থীরা

প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণির সরকারি চাকুরিতে কোটা পুনর্বহাল নিয়ে হাইকোর্টের আদেশের প্রেক্ষিতে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের (ববি) শিক্ষার্থীরা।

রবিবার (৯ জুন) বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকে সকাল ১১টা থেকে এক ঘণ্টা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ মিছিল করেন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। এসময় দেখা যায় নুরুজ্জামান মিরাজ (নূর) এর পিঠে লেখা ছিলো কোটা নিপাত যাক, বৈষম্য দুর কর। এ যেন স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনের প্রতিচ্ছবি বলছেন তারা।

বাংলা বিভাগের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী নূর জানান, স্বৈরচারী বিরোধী আন্দোলনে যেমন নুর রাস্তায় নেমে পিঠে লিখেছিলো স্বৈরাচার নিপাত যাক, ঠিক তেমনি বৈষম্য দূর করে কোটা নিপাত করা হবে। তিনি জানান, বৈষম্য দুর করার জন্যে ’৭১-এর মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিলো। আবার সেই বৈষম্য শুরু হয়ে গেছে। কোটা বহাল রেখে দেশে মেধাবী শূন্য করা হচ্ছে।

এছাড়া বক্তব্য রাখেন ইংরেজি বিভাগের অনিকা সরকার, বাংলা বিভাগের ইউসুফ, আইন বিভাগের মাইনুল ইসলাম, অর্থনীতি বিভাগের ভূমিকা সরকার ও আইন বিভাগের ইমন আলীসহ অন্যান্য শিক্ষার্থীরা।

বিক্ষোভ শেষে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা বলেন, কোনো বৈষম্যহীন রাষ্ট্রে ৫৬ শতাংশ কোটা থাকতে পারে না। তীব্র আন্দোলনের মুখে সরকার যেখানে কোটা পদ্ধতি বাতিল করেছিলো হাইকোর্ট কেন সেই কোটাকে আবার পুনর্বহাল করলো আমরা জানি না। সরকারের সিদ্ধান্তকে হাইকোর্ট বাতিল করেছে। আমরা চাইবো সরকারের পক্ষ থেকে যেন আপিল বিভাগে আপিল করা হয়। নয়তো আন্দোলন চলবে। আমরা রাজপথ ছাড়বো না।

তারা আরও বলেন, ২০১৮ সালের রক্তের দাগ আজও শুকায় নাই। টিয়ারশেলের দাগ আজও শুকায় নাই। আমাদের সেই সংগ্রাম ব্যর্থ হওয়ার পথে। আমাদের উপর হাইকোর্ট যে রায় চাপিয়ে দিয়েছে আমরা সেই রায় মানি না। যারা কোটাধারী মেধাবী পরিচয় দিতে চান, তাদেরকে বলতে চাই, এই পরিচয় খুবই লজ্জার।

সর্বশেষ সর্বাধিক পঠিত